1. hasansahriare@gmail.com : Hasan Sahriare : Hasan Sahriare
  2. asmjashim2017@gmail.com : Diganta : jashim Diganta
  3. admin@digantanews24.com : Manir :
স্বামীকে হত্যায় পরকীয়া প্রেমিকের মৃত্যুদণ্ড, স্ত্রীর যাবজ্জীবন - Diganta News
শনিবার, ১০ এপ্রিল ২০২১, ০৬:০৯ অপরাহ্ন

স্বামীকে হত্যায় পরকীয়া প্রেমিকের মৃত্যুদণ্ড, স্ত্রীর যাবজ্জীবন

  • Update Time : বৃহস্পতিবার, ১ এপ্রিল, ২০২১, ৮.৪৮ পূর্বাহ্ণ
  • ৭৫৪ Time View
ছবিঃ সংগ্রহীত

নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জ এলাকায় আমিনুল ইসলাম কালু নামের এক গার্মেন্টকর্মীকে হত্যাকাণ্ডের অভিযোগে দায়ের করা মামলার রায়ে নিহতের দণ্ডিত স্ত্রীর পরকীয়া প্রেমিককে পৃথক দুটি ধারার মধ্যে একটিতে মৃত্যুদণ্ড ও আরেকটিতে অর্থদণ্ডসহ কারাদণ্ড ও স্ত্রীসহ ৩ জনকে যাবজ্জীবনসহ পৃথক ধারায় কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

গতকাল বুধবার নারায়ণগঞ্জের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ ২য় আদালতের বিচারক বেগম সাবিনা ইয়াসমিন দণ্ডিত চার আসামির উপস্থিতিতে রায় ঘোষণা করেন।

দণ্ডিতরা হলো, নিহত আমিনুল ইসলাম কালুর স্ত্রী রিক্তা বেগম, খুনের সহযোগী পরকীয়া প্রেমিক রেজাউল করিম পলাশ, আতিকুল ইসলাম আতিক ও মিজানুর রহমান মিতু।

আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর জাসমিন আহমেদ গণমাধ্যমকে জানান, রায়ে পলাশকে ৩০২/৩৪ ধারায় মৃত্যুদণ্ডসহ ৫০ হাজার টাকা অর্থদণ্ড করা হয়েছে এবং ২০১ ধারায় ৩ বছরের সশ্রম কারাদণ্ডসহ ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। জরিমানা অনাদায়ে আরো ২ মাসের সশ্রম কারাদণ্ডের রায় ঘোষণা করেছেন। 

রিক্তা বেগমসহ ৩ জনকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ডসহ ৩০ হাজার টাকা করে প্রত্যেককে অর্থদণ্ড করা হয়েছে। অর্থ অনাদায়ে আরও ২ বছর করে সশ্রম কারাদণ্ডের রায় ঘোষণা করেছেন। এছাড়াও দণ্ডিত এই তিন আসামিকে ২০১ ধারায় আরও ৩ বছর করে সশ্রম কারাদণ্ডসহ ৫ হাজার টাকা করে জরিমানা করেছেন। জরিমানা অনাদায়ে আরও ২ মাস করে সশ্রম কারাদণ্ডের রায় ঘোষণা করেছেন। 

মামলার বাদী নিহত আমিনুল ইসলাম কালুর বড় ভাই শামসুল হক সাংবাদিকদের জানান, আমিনুল ইসলাম কালু ও রিক্তা বেগমের ১০ বছরের সংসারে ইব্রাহীম নামের সাত বছরের একটি ছেলে সন্তান রয়েছে। আমিনুল ইসলাম কালু গার্মেন্টে কাজ করত আর তার স্ত্রী রিক্তা বেগম বাসায় রেজাউল করিম পলাশ, আতিকুল ইসলাম আতিক ও মিজানুর রহমান মিতুকে মেস করে খাওয়াত।

এতে রেজাউল করিম পলাশের সঙ্গে রিক্তার পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক হয় এবং অবৈধ মেলামেশা চলতে থাকে। এ সম্পর্কে আমিনুলকে হত্যা করে রিক্তা বেগমকে বিয়ে করার আশ্বাস দেয় রেজাউল। এতে রেজাউল তার আরো দুই সহযোগীকে সঙ্গে নিয়ে ২০১৯ সালের পহেলা মার্চ আমিনুলকে বাসা থেকে ডেকে সোনারগাঁয়ের কাফুরদী এলাকায় নিয়ে জবাই করে হত্যা শেষে লাশ নদীর পাড়ে ফেলে দেয়। পরের দিন সকালে আমিনুলের মৃতদেহ নদীর পাড় থেকে পুলিশ উদ্ধার করে।

নিউজটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এই বিভাগের আরো খবর

Copyright © All Right Reserved digantanews24.com
Theme Customized BY CreativeNews